জানুয়ারি ২১, ২০১৬
Home » আন্তর্জাতিক » সৈয়দ মেহেদী রাসেল কানাডা ছাত্রলীগের আহবায়ক নির্বাচিত

সৈয়দ মেহেদী রাসেল কানাডা ছাত্রলীগের আহবায়ক নির্বাচিত

এইবেলা, কানাডা, ২১ জানুয়ারি::  বঙ্গবন্ধু স্মৃতি পরিষদ বড়লেখা এর প্রতিষ্ঠাতা, তরুণ মেধাবী ছাত্রনেতা সৈয়দ মেহেদী রাসেল কে আহবায়ক করে বাংলাদেশ ছাত্রলীগ, কানাডার আহবায়ক কমিটি ঘোষণা করা হয়।
গত ২০ শে ডিসেম্বর রবিবার কানাডার মান্ট্রিয়লে বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ কানাডা (ক্যুইবেক) মহান বিজয় দিবস উদযাপন এর আলোচনা সভায় সভাপতি মুন্সি বশির এ ঘোষণা দিলে উপস্থিত ছাত্রলীগ ও আওয়ামীলীগের নেতাকর্মীরা বিপুল করতালির মাধ্যমে নব-নির্বাচিত আহবায়ক কমিটিকে বরণ করে নেন। তিনি আরো বলেন, খুব শীগ্রই পূর্নাঙ্গ কমিটি গঠন করা হবে এবং অভিষেক অনুষ্ঠানের মাধ্যমে বাংলাদেশ ছাত্রলীগ এর কানাডা শাখার কমিটিকে বরণ করে নেয়া হবে।
কানাডা ছাত্রলীগের আহবায়ক সৈয়দ মেহেদী রাসেল এক প্রতিক্রিয়ায় বলেন, বঙ্গবন্ধুর নিজের হাতে গড়া বাংলাদেশ ছাত্রলীগ এর কানাডা শাখার আহবায়ক নির্বাচিত হওয়ায় আমি গর্বিত। আমি এই মুহুর্তে স্বাধীন বাংলার স্থপতি জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান কে গভীর শ্রদ্ধায় স্মরণ করছি এবং প্রতিশ্রুতি দিচ্ছি বঙ্গবন্ধুর আদর্শ বাস্তবায়নে কানাডা ছাত্রলীগ কাজ করে যাবে। বাংলাদেশ ছাত্রলীগ এর গৌরব ও ঐতিহ্যময় ইতিহাস বিশ্বব্যাপী তুলে ধরার পাশাপাশি কানাডার নতুন প্রজন্মকে মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় স্বাধীন বাংলাদেশ নিয়ে, জয় বাংলা জয় বঙ্গবন্ধু স্লোগানে গৌরবান্বিত করার প্রয়াসে কাজ করে যাব।

এর আগে যুদ্ধাপরাধীদের ফাঁসিতে কলঙ্কমুক্ত ও উন্নয়নের জোয়ারে ভেসে যাওয়া বাংলাশের ৪৫ তম বিজয় দিবস উদযাপন করে বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ কানাডা (ক্যুইবেক শাখা)। ক্যুইবেক শাখার সাধারণ সম্পাদক সাবেক ছাত্রনেতা সাজ্জাদ হোসেন সুইট এর মনোমুগ্ধকর উপস্থাপনায় প্রথমেই সকল শহীদ বীর মুক্তিযোদ্ধা ও ৭৫ এর ১৫ ই আগষ্ট জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের পরিবারের শাহাদৎ বরণকারী সকলকে গভীর শ্রদ্ধায় স্মরণ করে এক মিনিট নীরবতা পালন করা হয়।

বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ কানাডা, ক্যুইবেক শাখার সভাপতি সাবেক ছাত্রনেতা মুন্সি বশীর এর সভাপতিত্বে বক্তারা বলেন, বাংলাদেশ এগিয়ে যাচ্ছে। মাননীয় প্রধনমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশ ইতিমধ্যেই উন্নয়নশীল দেশ থেকে মধ্যম আয়ের দেশে পরিণত হয়েছে। দারিদ্রের হার অর্ধেক নেমে এসেছে, মাথাপিছু আয় ১৩ শত মার্কিন ডলারের বেশী। ২০০৮ সাল থেকে বিশ্বমন্দা চলছে। এর মধ্যেও এ বছর বাংলাদেশের জিডিপি সাড়ে ৬ শতাংশ। পৃথিবীর মাত্র ৫-১০ টি দেশের এমন নজির আছে। বিশ্ব ব্যাংক সরে গেলেও শেখ হাসিনার একক চ্যালেঞ্জে নিজস্ব অর্থায়নে স্বপ্নের পদ্মা সেতুর মূল কাজ দ্রুতগতিতে এগিয়ে চলেছে এবং অর্থনৈতিক ও অবকাঠামোগতভাবে বাংলাদেশ উন্নয়নের জোয়ারে ভাসছে।

বাংলাদেশের অগ্রযাত্রায় সামিল হতে দেশনেত্রী মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে জয় বাংলার পতাকাতলে এক হতে সকলের প্রতি আহবান জানান বক্তারা।

আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখেন- কানাডা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক দিদার মাহমুদ ভূঁইয়া, আবুল কাশেম, মুক্তিযোদ্ধা হাজী মাসুদ, নুরুল ইসলাম, সাজেদা হোসনে, মুক্তিযোদ্ধা রশীদ খান, কবি শহীদ রহমান, রতন মজুমাদার, রনজিৎ মজুমদার, শহীদুল ইসলাম খান, মুক্তিযোদ্ধা বিমলেন্দু রায়, ছাত্রলীগ নেতা সৈয়দ মেহেদী রাসেল, মনজুরুল ইসলাম চৌধুরী, ছাত্রলীগ নেতা ও অনলাইন এক্টিভিস্ট সৈয়দ ইউসুফ তাকি, শাহ মোহম্মদ ফায়েক, ওসমান হায়দার বাচ্চু, দীন মোহাম্মদ, মো: ইয়াকুব, মতিন মিয়া, শাহজাহন ভূইয়া, আবু ইউনুস সুজন, অহিদুজ্জামান ভুইয়া, সাহাজাহন ভুইয়া, মাসুদ সিদ্দিকী প্রমুখ।