মার্চ ১৩, ২০১৬
Home » নির্বাচিত » কমলগঞ্জে দুইদিনব্যাপী মণিপুরী রজতজয়ন্তী শুরু

কমলগঞ্জে দুইদিনব্যাপী মণিপুরী রজতজয়ন্তী শুরু

এইবেলা, কমলগঞ্জ , ১৩ মার্চ :: বর্ণাঢ্য আয়োজনে মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জে বাংলাদেশের মণিপুরি সাহিত্য, তথ্য-গবেষণা ও প্রকাশনা বিষয়ক সংগঠন ‘পৌরি’র দুইদিনব্যাপী রজতজয়ন্তী উৎসব শুরু হয়েছে। শনিবার সন্ধ্যা ৭টায় মাধবপুর শিবাবাজারস্থ মণিপুরি ললিতকলা একাডেমি অডিটরিয়ামে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে ২৫টি মোমবাতি প্রজ্বলনের মাধ্যমে রজতজয়ন্তী অনুষ্ঠানের শুভ উদ্বোধন করেন মৌলভীবাজার জেলা প্রশাসক মো. কামরুল হাসান।

Pic---Pouri-3

পৌরি’র রজতজয়ন্তী উপলক্ষে ”মেইপুল” নামক একটি স্মারবকপত্রের মোড়ক উন্মোচন করা হয়। রজতজয়ন্তি উপলক্ষে বাংলাদেশ ও ভারতের ৮ জন গুণী ব্যক্তিকে “স্মারক সম্মান”-এ ভূষিত করা হয়েছে। মণিপুরি সমাজ-সাহিত্য-সংস্কৃতিতে মূল্যবান অবদানের জন্য পৌরির রজতজয়ন্তি স্মারক সম্মাননা প্রাপ্ত ৮ গুণী ব্যক্তি হচ্ছেন-তামান্না রহমান (মণিপুরী নৃত্যকলা), জ্যোতি সিনহা (বিষ্ণুপ্রিয়া মণিপুরি নাট্যকলা), গীতশ্রী চন্দ্রমোহন সিংহ (মণিপুরি নটসংকীর্তনের সঙ্গীত), নবকুমার সিংহ (শিক্ষা), আশুতোষ সিংহ রবি (বিষ্ণুপ্রিয়া মণিপুরি আধুনিক সঙ্গীত), লক্ষ্মীন্দ্রকুমার সিংহ (বিষ্ণুপ্রিয়া মণিপুরি কাব্যসাহিত্য), মণিলাল সিংহ (মরণোত্তর: সমাজ-সংগঠক) ও শক্তিকুমার সিংহ (চিত্রকলা)। স্মারক সম্মাননা প্রদানপর্বে উপস্থিত ছিলেন বিশিষ্ট লেখক, শিল্পী, সংস্কৃতিকর্মীবৃন্দ। সম্মাননাপর্ব শেষে ভারত ও বাংলাদেশের শিল্পীদের পরিবেশনায় অনুষ্ঠিত হয় মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান।

Pic---Pouri-6
পৌরি’র সভাপতি ডা: সুকুমার সিংহ বিমলের সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক সুশীল কুমার সিংহের সঞ্চালনায় উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন মৌলভীবাজার জেলা প্রশাসক মো. কামরুল হাসান। বিশেষ অতিথি ছিলেন কমলগঞ্জ উপজেলা চেয়ারম্যান, বীর মুক্তিযোদ্ধা অধ্যাপক মো. রফিকুর রহমান, সহকারী পরিচালক (ভূমি) রফিকুল আলম, ভারতের আসাম সরকারের শিক্ষা বিভাগের প্রাক্তন পরিচালক কুমকুম সিংহ, বিশিষ্ট জিন বিজ্ঞানী ড. আবেদ চৌধুরী, মণিপুরি সমাজকল্যান সমিতির সভাপতি প্রতাপচন্দ্র সিংহ, মণিপুরি মহারাসলীলা সেবাসংঘের সভাপতি অ্যাড: চাঁদমুরারী সিংহ।

Pic---Pouri-2

অনুষ্ঠানে শুভেচ্ছা বক্তব্য রাখেন পৌরি’র রজতজয়ন্তি উৎসব উদযাপন পরিষদের আহবায়ক সমরজিত সিংহ। অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন ম্মাননাপ্রাপ্ত মণিপুরি নৃত্যশিল্পী তামান্না রহমান, মণিপুরি থিয়েটারের সভাপতি কবি ও নাট্যকার শুভাশীষ সিংহ সমীর, পৌরি সম্পাদক সুশীল কুমার সিংহ প্রমুখ। সম্মাননা পর্ব শেষে মণিপুরি থিয়েটার পরিবেশন করে মণিপুরি নৃত্য। জ্যোতি সিনহা ও সহশিল্পীদর পরিবেশনায় ৫ মিনিটের কথানাট্য ‘দ্রৌপদীকথন’ এবং নাটিকা ‘কালাচিংখেই’। জ্যোতি সিনহা এর আগে ভারতের মণিপুরিদের সংগঠন এল. এল. প্রোডাকশন (লেরিক লেইশাং প্রকাশনী) থেকে ‘রতœনন্দিনী’ খেতাবে ভূষিত হন।

Pic---Pouri-7

পৌরির প্রতিষ্ঠাতা বর্তমানে আমেরিকাপ্রবাসী উত্তম সিংহ। সভাপতি ডা. সুকুমার সিংহ বিমল। কমলগঞ্জের এ সংস্থাটি এ যাবৎ মণিপুরি (বিষ্ণুপ্রিয়া) ও বাংলা ভাষার মূল্যবান ৩০টি গ্রন্থ প্রকাশ করেছে। নিয়মিত প্রকাশ করছে ‘পৌরি পত্রিকা’। আয়োজন করেছে ভারত-বাংলাদেশের মণিপুরি শিল্পীদের নিয়ে মৃদঙ্গ উৎসব, সাহিত্য-সেমিনার। রজতজয়ন্তি উপলক্ষে আয়োজিত দু’দিনের অনুষ্ঠানের আহ্বায়ক সমরজিত সিংহ। সদস্য সচিব পৌরি পত্রিকার সম্পাদক সুশীলকুমার সিংহ।

রিপোর্ট-প্রনীত রঞ্জন দেবনাথ