- জাতীয়, ব্রেকিং নিউজ, মৌলভীবাজার, স্থানীয়, স্লাইডার

কমলগঞ্জ উপজেলাকে বাল্যবিবাহ মুক্ত ঘোষণা

এইবেলা, কমলগঞ্জ, ১৭ আগস্ট :: ৯টি ইউনিয়ন ও ১টি পৌরসভার ওয়ার্ডে ওয়ার্ডে এবং ইউনিয়ন সদরে লাখো কন্ঠে শপথ ও জনসচেতনতা মূলক সমাবেশ এরপর উপজেলা সদরে এক অনাড়ম্বর অনুষ্ঠানের মাধ্যমে মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জ উপজেলাকে বাল্য-বিবাহ মুক্ত ঘোষণা করা হয়েছে।

Pic--D,C

১৭ আগস্ট বুধবার কমলগঞ্জ উপজেলা সদরের জেলা পরিষদ অডিটোরিয়াম কাম মাল্টিপারপাস হলরুমে উপজেলার প্রশাসনিক কর্মকর্তা, রাজনৈতিক ও সামাজিক সাংস্কৃতিক নেতৃবৃন্দ, জনপ্রতিনিধি, শিক্ষক-শিক্ষার্থী, এনজিও কর্মীসহ সর্বস্তরের জনগনের উপস্থিতিতে ব্যাপক উৎসাহ উদ্দীপনার মধ্য দিয়ে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে আনুষ্ঠানিকভাবে শপথ বাক্য পাঠ ও সমাবেশের মাধ্যমে কমলগঞ্জ উপজেলাকে বাল্য-বিবাহ মুক্ত ঘোষণা করেন মৌলভীবাজার জেলা প্রশাসক মো. কামরুল হাসান।

pic-kamal-bilo-2

পরে উপজেলা নিবার্হী কর্মকর্তা মোহাম্মদ মাহমুদুল হকের সভাপতিত্বে অনুষ্টিত হয় আজ থেকে বাল্য-বিবাহ দেবোনা শ্লোগানের শপথ গ্রহণ অনুষ্টান। “কন্যা শিশুর বিয়ে নয়, করবে তারা বিশ্ব জয়” এই শ্লোগানকে সামনে রেখে  কমলগঞ্জে হাজারও লোকের সমাবেশের মাধ্যমে  বাল্যবিবাহ মুক্ত শপথ পাঠ  অনুষ্ঠিত হয় । অনুষ্ঠানে একযোগে শপথ বাক্য পাঠ  করেন ছাত্র, শিক্ষক, অভিভাবক, পরিচালনা পরিষদ সদস্য, জনপ্রতিনিধি, সাংবাদিক ও নানা শ্রেণী পেশার মানুষজন।

কমলগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ মাহমুদুল হকের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান অধ্যাপক মো. রফিকুর রহমান, উপজেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি এম. মোসাদ্দেক আহমেদ মানিক, সহকারী কমিশনার (ভূমি) রফিকুল আলম, উপজেলা পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান-১ পারভীন আক্তার লিলি, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান মো. সিদ্দেক আলী, কমলগঞ্জ পৌরসভার মেয়র মো. জুয়েল আহমদ, রহিমপুর ইউপি চেয়ারম্যান ইফতেখার আহমেদ বদরুল, আলীনগর ইউপি চেয়ারম্যান ফজলুল হক বাদশা। অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন উপজেলা মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা শাহেদা আক্তার। উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার (ভারপ্রাপ্ত) জাহাঙ্গীর আলমের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন প্রধান শিক্ষক হুমায়ুন কবীর, নারী নেত্রী মুন্না রায়, সাংবাদিক মুজিবুর রহমান রঞ্জু, কমলগঞ্জ সাংবাদিক সমিতির সভাপতি আব্দুল হান্নান চিনু, প্রেসক্লাব সম্পাদক শাহীন আহমেদ প্রমুখ।

অনুষ্ঠানে কমলগঞ্জ উপজেলার ৯টি ইউনিয়ন ও ১টি পৌরসভার ৯০টি ওয়ার্ডের বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে বাল্য বিবাহ প্রতিরোধে গত ৭ আগষ্ট অনুষ্ঠিতব্য একযোগে লাখো কন্ঠে শপথ ও জনসচেতনতামূলক সমাবেশের বিভিন্ন জাতীয় ও স্থানীয় পত্রিকার সচিত্র প্রতিবেদন ও অনুষ্ঠানের ছবি-ভিডিও মাল্টিমিডিয়া প্রজেক্টরের মাধ্যমে প্রদর্শন করা হয়।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে মৌলভীবাজার জেলা প্রশাসক মোঃ কামরুল হাসান বলেন, বাল্য বিবাহ একটি সামাজিক ব্যাধি। এই সামাজিক ব্যাধিকে বের হতে হলে সকলকে একযোগে কাজ করতে হবে। বাল্য বিবাহের কুফল সম্পর্কে মানুষকে সচেতন করতে হবে। একটি মেয়ের ধারণ ক্ষমতা না থাকলে তাকে মৃত্যু দিকে ধাবিত হতে হবে। মেয়ের বয়স ১৮ ও ছেলে বয়স ২১ বছর না হওয়া পর্যন্ত বিয়ে দেয়া বা করানো যাবে না। আজ থেকে সকলেই শপথ নিলাম বাল্য বিবাহ মুক্ত করবো। তিনি আরো বলেন, মৌলভীবাজার জেলার ৭টি উপজেলায় বাল্য বিবাহ মুক্ত ঘোষণা করা হয়েছে। এরপর যদি কোন স্থানে বাল্য বিবাহ হয় তাহলে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে। তাই সবাইকে সচেতন হতে হবে।#

রিপোর্ট- প্রনীত রঞ্জন দেবনাথ

About eibeleamialabula

Read All Posts By eibeleamialabula

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *