জুন ১৮, ২০১৭
Home » জাতীয় » রাজনগরে প্রবাসীর স্ত্রী হত্যা : পারিবারিক কলহের নেপথ্যে দুটি কারণ

রাজনগরে প্রবাসীর স্ত্রী হত্যা : পারিবারিক কলহের নেপথ্যে দুটি কারণ

 

আটক ৫ আসামীর ৪ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর-

এইবেলা, রাজনগর. ১৮ জুন :: মৌলভীবাজারের রাজনগর উপজেলায় পারিবারিক কলহের জের ধরে প্রবাসীর স্ত্রী বাবলী আখতার (২৬) হত্যার নেপথ্যে দুটি কারণ খুঁজে পেয়েছে পুলিশ। মৃত্যুর এক সপ্তাহ আগে বাবলী তার মাকে শ্বশুড়বাড়ির নির্যাতন ও তাকে মেরে ফেলার পরিকল্পনার কথা জানিয়েছিলো। আর এর নেপথ্যে ছিলো দুটি কারণ এক. বাবলীর প্রবাসী স্বামী সুরুক মিয়ার ব্যাংক ব্যালেন্স দুই. জা রুমার পরকিয়া।

এদিকে প্রবাসীর স্ত্রী বাবলী আখতারের দুলাভাই হারুন আহমদ বাদী হয়ে রাজনগর থানায় হত্যা মামলা দায়ের করলে পুলিশ শ্বাশুড়ী মাখন বিবি (৫৫), জা রুমা বেগম (৩০), ননদ মিলন বেগম (৩৫), জা’র পরকিয়া প্রেমিক ও পাশের বাড়ীর কথিত দেবর তুহিন মিয়া (৩১) ও বাড়ির কেয়ারটেকার লেছু মিয়া (৫০) এই ৫জনকে আটক করে পুলিশ। শনিবার তাদের ১০দিনের রিমান্ড চেয়ে আদালতে হাজির করেন। আদালত আসামীদের ৪দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

নিহত বাবলীর দুলাভাই মামলার এজহারে উল্লেখ করেন, ২০১০ সালে রাজনগর উপজেলার মনসুরনগর ইউনিয়নের মৃত মনির মিয়ার ছেলে সৌদি আরব প্রবাসী সুরুক মিয়ার সাথে মৌলভীবাজার সদর উপজেলার মল্লিকসরাই গ্রামের হাজি আয়াছ মিয়ার মেয়ে বাবলী আখতারের বিয়ে হয়। তাদের ৫ বছরের ও ১১ মাস বয়সী দুটি পুত্রসন্তান রয়েছে। গৃহবধুর স্বামী সুরুক মিয়া তার পরিবারের অজান্তে মৌলভীবাজারের সাউথইস্ট ব্যাংকে ও ইসলামি ব্যাংকে একক ও যৌথ একাউন্টে প্রায় ৩২ লাখ টাকা জমা রাখেন। বিষয়টি জানতে পেরে বাবলী আখতারের ড্রয়ারের তালা ভেঙ্গে ননদ মিলন বেগম ব্যাংকের সব কাগজপত্র নিয়ে নেন। এনিয়ে ওই শ্বাশুড়ী, ননদ ও জা মিলে তাকে প্রায়ই নির্যাতন করতেন নিহত বাবলীকে। তাদের নির্যাতনের কারণে নিহত বাবলী মাঝে মধ্যে বাবার বাড়ি চলে যেতেন। বিষয়টি তার স্বামী সুরুক মিয়াকেও জানানো হয়।

এদিকে বাবলী আখতারের জা রুমা বেগমের সঙ্গে তারই পাশের বাড়ির কথিত দেবর তুহিন মিয়ার অবৈধ সম্পর্ক গড়ে উঠে। এ বিষয়টিও দেখে ফেলেন বাবলী আখতার। রুমার সম্পর্ক প্রকাশ পেয়ে যাবে বলেও তাকে (বাবলী) নির্যাতন করতেন জা রুমা বেগম।

এদিকে গত এক সপ্তাহ আগে বাবলী আখতারের মা জাহানারা বেগম মেয়ের বাড়িতে এলে নির্যাতনের বর্ণনা দেয় এবং রুমা বেগম তাকে মেরে ফেলার পরিকল্পনা করছে বলেও জানায়। শুক্রবার বাবলীর মৃত্যুর পর সকালে রুমা বেগম ফোন দিয়ে জাহানারা বেগমকে জানান, বাবলী আখতার গুরুতর অসুস্থ। তারা বাবলীকে দেখতে এসে তার লাশ  উঠানে পড়ে থাকতে দেখেন।

রাজনগর থানার অফিসার ইনচার্জ শ্যামল বনিক জানান, এজহারনামীয় ৫জনকে গ্রেফতার করে শনিবার ১০ দিনের রিমান্ড চেয়ে আদালতে হাজির করলে আদালত ৪ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করে। আসামীদের জিজ্ঞাসাবাদ চলছে। এজহারে উল্লেখিত দু’টি অভিযোগের বিষয়ে তদন্ত চলছে।

উল্লেখ্য, রাজনগর উপজেলায় পারিবারিক কলহের জের ধরে শুক্রবার ১৬ জুন বাবলী আখতার (২৬) নামক এক প্রবাসীর স্ত্রীকে পরিকল্পিতভাবে হত্যা করে শ্বশুড় বাড়ির লোকজন। পরদিন শনিবার বিকালে ময়নাতদন্ত শেষে বাবলী আখতারের লাশ তার বাবার বাড়ি মৌলভীবাজারের সদর উপজেলার মল্লিক সরাই গ্রামে দাফন করা হয়।#