মে ১০, ২০১৮
Home » ব্রেকিং নিউজ » বেঙ্গল ফুডের দইয়ে ছত্রাক থানায় জিডি

বেঙ্গল ফুডের দইয়ে ছত্রাক থানায় জিডি

এইবেলা, মৌলভীবাজার, ১০ মে :: মৌলভীবাজার বেঙ্গল ফুডের দইয়ে জীবানুনাশক ছত্রাক ও ময়লায় সয়লাব। নিরুপায় হয়ে বেঙ্গল ফুডের এক এজেন্ট মালিক পক্ষের বিরুদ্ধে থানায় সাধারন ডায়েরি জিডি দায়ের করেছেন।

খোঁজ নিয়ে জানা যায়, ব্রান্মণবাজার খান ডিপার্টমেন্টাল স্টোরের মালিক মো: ওয়াজেদ খান মৌলভীবাজাার বেঙ্গল ফুডের একজন নিয়মিত এজেন্ট। তিনি গত ৪ মে ব্রান্মণবাজারে একটি বিয়ের পাটির জন্য ৬০০ পিস কাপ দই মৌলভীবাজার বেঙ্গল ফুডের ওর্ডার দেন। পরে আগের দিন ৩ মে তিনি তার দোকানের অন্য মালের পাশাপাশি বিয়ের দই ও নিয়ে আসেন। কিন্তুু দোকানে দই গুলো এনে কাটন খুলে দেখতে পান প্রতিটি দইয়ের কাপের উপর ছত্রাক ও জীবানু যুক্ত ময়লায় সয়লাব হয়ে আছে। সাথে সাথে তিনি ওই দইগুলো অটোরিকশা যোগে মৌলভীবাজার বেঙ্গল ফুডের ম্যানেজারের কাছে গিয়ে চালান সহ ফিরত দেন।

পরে বেঙ্গল ফুডের মালিক সৈয়দ ফারুক এবং তার ছেলে সৈয়দ রিমনের সাথে ফোনে যোগাযোগ করলে মালিক পক্ষ ঔই এজেন্টকে কোনো সান্তনা না দিয়ে উল্টো তাদের সাথে অসুলোভ খারাপ আছরন করেন, এমনকি এ ঘটনা নিয়ে বেশি বাড়া বাড়ী করলে তাদের এজেন্ট বাতিল ও প্রাণনাশের হুমকি প্রদান করে।

পরে নিরুপায় হয়ে ওয়াজেদ খান মালিক পক্ষের বিরুদ্ধে কুলাউড়া থানায় একটি অভিযো জিডি নং ৪০০/ ৮,৫,২০১৮ইং দায়ের করেন।

এ ব্যাপারে ব্রাহ্মনবাজার খান ডিপার্টমেন্টালের মালিক ওয়াজেদ খান জানান, এসব কাপ দইয়ের মেয়াদ নিধািরত ৩ দিন থাকলেও ওইদিনই দোকানে দইগুলো এনে সমস্যার সমুখীন হতে হলো। পুরোনো বাসি দই দেওয়া হয়েছে বলে তিনি অভিযোগ করেন।

এ ব্যাপারে বেঙ্গল ফুডের মালিক সৈয়দ ফারুকের মোবাইল ফোনে (০১৭১১ ৯২৩০৩৮) নাম্বারে কয়েক বার যোগাযোগ করা হলেও তিনি ফোন ধরেন নি।