মার্চ ২৬, ২০১৯
Home » ব্রেকিং নিউজ » কুলাউড়ায় চা শ্রমিক যুবককে নিজ ঘরে বেঁধে পেটালেন পঞ্চায়েত সভাপতি

কুলাউড়ায় চা শ্রমিক যুবককে নিজ ঘরে বেঁধে পেটালেন পঞ্চায়েত সভাপতি

এইবেলা, কুলাউড়া, ২৬ মার্চ ::

কুলাউড়া উপজেলার গাজিপুর চা বাগানে রাজু রবিদাস (২৫) নামক চা শ্রমিক যুবককে হাত পা বেঁধে পিটিয়ে মারাত্মক আহত করেছেন বাগান পঞ্চায়ের সভাপতি বাবলু গোয়ালা। ঘটনাটি ঘটেছে রোববার ২৪ মার্চ বিকেলে গাজিপুর চা বাগানের পঞ্চায়েত সভাপতি বাবলু গোয়ালার ঘরে। পরদিন মুমুর্ষ অবস্থায় ওই যুবককে এলাকাবাসী উদ্বার করে কুলাউড়া হাসপাতালে ভর্তি করেছে।

হাসপাতালে চিকিৎসারত রাজু রবিদাসের মা রাজকুমারী রবিদাস বলেন, ২ মাস পূর্বে আমার ভাগ্নে রনজিতের সাথে আমার ছেলে রাজুর কিছু টাকা নিয়ে বিরোধ বাধলে পঞ্চায়ের সভাপতি বাবলু গোয়ালা,নানকা মেম্বার,রাজু মেম্বার বৈঠক করে সমাধান করে দেন। তাদের কথামতো আমি ৪২ হাজার ৫ শ টাকা আমার ভাগ্নেকে প্রদান করি। কিন্তু বাবলু গোয়ালা আমার নিকট ২ লক্ষ টাকা দাবি করেন। নতুবা আমার ছেলেকে বিভিন্ন ঘটনায় ফাঁসিয়ে দেয়ার জন্য হুমকি দেন। আমি গরীব শ্রমিক তাকে কেন এবং কোথায় থেকে এতো টাকা দিবো এ কথা বলায় বাবলু দেখে নেয়ার হুমকি দেয়। পরে আমি কুলাউড়া সদর ইউনিয়েনের চেয়ারম্যানকে বিষয়টি অবহিত করি। কিন্তু গত রোববার বিকেলে আমার ছেলেকে ডেকে নিয়ে বাবলু গোয়ালা তার ঘরে আটকিয়ে হাত পা বেঁধে রেখে উপর্যপূরী মারধর করে। বাগানের মেম্বার নানকা ও পাশ্ববর্তী ওয়ার্ডের রাজু মেম্বার ও অঞ্জন আমার ছেলেকে মারধর করেন। তারা লাঠি দিয়ে পায়ের তলায় আঘাত করে এবং বাবলু আমার ছেলের গলায় হাত দিয়ে হত্যার চেষ্টা করে। পরবর্তীতে আমার ছেলের চিৎকারে এলাকাবাসী এগিয়ে এসে তাকে উদ্বার করেন এবং চেয়ারম্যানকে ফোনে অবহিত করলে তিনি বাগান হাসপাতালে ভর্তি করেন। কিন্তু অবস্থার অবনতি হলে তাকে কুলাউড়া হাসপাতালে ভর্তি করা হয় সোমবার বিকেলে। বর্তমানে রাজু রবিদাস হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছেন।

গাজিপুর চা বাগানের পঞ্চায়েত সভাপতি বাবলু গোয়ালার মোবাইল ফোন বন্ধ পাওয়ায় বিষয়টির ব্যাপারে কোন বক্তব্য পাওয়া য়ায়নি।#