এপ্রিল ২, ২০১৯
Home » জাতীয় » কমলগঞ্জে বারুণী মেলা অনুষ্টিত

কমলগঞ্জে বারুণী মেলা অনুষ্টিত

এইবেলা, কমলগঞ্জ, ০২ এপ্রিল ::

মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জে শতবর্ষের ঐতিহ্যবাহী বারুণী মেলা অনুষ্টিত হয়েছে। হিন্দু সম্প্রদায়ের ঐতিহ্যবাহী এই মেলা চৈত্র মাসের মধুকৃষ্ণা ত্রয়োদশীর পূণ্য তিথিতে অনুষ্টিত হয়।

জানা যায়, ব্রিট্রিশ শাসন আমল থেকে কমলগঞ্জে বারুণী মেলা অনুষ্টিত হয়ে আসছে। কমলগঞ্জ কেন্দ্রীয় কালীবাড়ির পুরোহিত গোপাল চক্রবর্তী কমলগঞ্জে প্রথম এই মেলা চালু করেন। প্রায় ১শ বছর ধরে মেলা হয়ে আসছে। ভোরে কমলগঞ্জ কালীবাড়িতে বারুনী স্নানের পূজা শেষে মেলার যাত্রা শুরু হয়। কমলগঞ্জ কেন্দ্রীয় কালীবাড়ির বর্তমান পুরোহিত নীলমণি চক্রবর্তী ও তাঁর ৩ ভাই নির্মল চক্রবর্তী, মিলন চক্রবর্তী, ঝুলন চক্রবর্তী মেলার আয়োজন করে আসছেন। প্রতি বছরের ন্যায় এবছরও মঙ্গলবার (২ এপ্রিল) বারুণী স্নানের দিন মেলার আয়োজন করা হয়েছে। সারজমিনে মেলা ঘুরে দেখা যায়, কমলগঞ্জ মডেল সরকারি উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে অনুষ্ঠিত মেলাতে প্রায় ৫ শতাধিক নানা প্রকার পণ্যের পসরা সাজিয়ে দোকান বসেছে। রকমারী খাবার, শিশুদের খেলনা, গ্রামবাংলার ঐতিহ্যবাহী জিনিষ সম্বলিত দেকানপাট বসেছে মেলাতে। তাছাড়া গ্রামবাংলার নাগরদোলারও স্থান পেয়েছে মেলাতে। সকাল থেকেই মেলাতে ক্রেতা ও দর্শনার্থীদের উপছেপড়া ভিড় ছিল। বিশেষ করে শিশু ক্রেতাদের ভিড় ছিলো দেখার মতো। গ্রামবাংলার কৃষিকাজে ব্যবহৃত মাথার ছাতা, তালপাতার পাখা, মাছ ধরার ছোপড়ী, ধান ঝাড়ার কোলা, শীতল পাটি, বটি, দা, কুন্তি, শিশুদের বিভিন্ন ধরনের প্লাষ্টিক ও মাটির তৈরী খেলনা সামগ্রী, বিভিন্ন ধরনের মন্ডা মিঠাই সহ রকমারী খাবারের দেখা মিলেছে মেলাতে। পুরোহিত নীলমণি চক্রবর্তী বলেন, ব্রিট্রিশ শাসন আমলে আমার বাবা স্বর্গীয় গোপাল চক্রবর্তীর উদ্যোগে এইু বারুণী মেলা কমলগঞ্জে অনুষ্ঠিত হয়ে আসছে। মেলায় প্রচুর মানুষের সমাগম হয়। রাতে গঙ্গা স্নানের মাধ্যমে মেলার সমাপ্তি ঘটবে। পুনরায় এপ্রিলের ১৫ তারিখ সোমবার ফিরতি অষ্টমী মেলা অনুষ্ঠিত হবে।#