- ব্রেকিং নিউজ, মৌলভীবাজার, স্থানীয়, স্লাইডার

বড়লেখায় বহিরাগত বখাটেদের উৎপাতে শিক্ষক ও শিক্ষার্থী আতঙ্কিত

এইবেলা, বড়লেখা, ১১এপ্রিল ::

বড়লেখা উপজেলার ছিদ্দেক আলী উচ্চ বিদ্যালয়ে বহিরাগত বখাটেদের উৎপাতে শিক্ষক ও শিক্ষার্থীরা আতঙ্কিত। বৃহস্পতিবার স্কুলের সুষ্ঠু পরিবেশ ফেরানো, বাল্যবিয়ে প্রতিরোধ ও ইভটিজিং বন্ধের লক্ষ্যে স্কুল কর্তৃপক্ষ সুধী সমাবেশ করেছে। এ সমাবেশের প্রস্তুতি চলাকালে হাবিব উল্লাহ নামে এক বখাটে জনৈক ছাত্রীকে উত্ত্যক্ত করায় তাকে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করা হয়।

স্কুল পরিচালনা কমিটির সভাপতি ইমরুল ইসলাম লালের সভাপতিত্বে ও শিক্ষানুরাগী সদস্য সাহেদুল মজিদ নিকুর পরিচালনায় অনুষ্ঠিত সুধী সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন মৌলভীবাজার জেলা পুলিশ সুপার মোহাম্মদ শাহজালাল।

স্বাগত বক্তব্য রাখেন স্কুলের প্রধান শিক্ষক আব্দুল জলিল। দীর্ঘদিন ধরে স্কুলে ঢুকে বখাটেরা কিভাবে শিক্ষার পরিবেশ বিনষ্ট করছে ও ছাত্রীদের সাথে অশালিন আচরণ করে যাচ্ছে তার বর্ণনা দেয় ভুক্তভোগী শিক্ষার্থীরা।

সমাবেশে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন উপজেলা চেয়ারম্যান সোয়েব আহমদ, পুলিশ সুপার (গোয়েন্দা) সারওয়ার আলম, উপজেলা মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান রাহেনা বেগম হাসনা, সুজানগর ইউপি চেয়ারম্যান নছিব আলী, সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান ছাব্বির আহমদ, থানার অফিসার ইনচার্জ মো. ইয়াছিনুল হক, ফুলতলা সাগরনাল শাহ নিমাত্রা কলেজের অধ্যক্ষ জহির উদ্দিন, গাংকুল পঞ্চগ্রাম আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আশরাফ হায়দার, শিক্ষার্থী অভিভাবক ও ব্যবসায়ী ফখরুল ইসলাম শুনু, অমর উদ্দিন, খায়রুল ইসলাম, সাবেক প্রধান শিক্ষক কাজী মাওলানা ফয়েজ আহমদ প্রমূখ।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে পুলিশ সুপার মোহাম্মদ শাহজালাল বলেন, স্কুলের শিক্ষার সুষ্ঠু পরিবেশ বজায় রাখতে, ইভটিজিং, বাল্যবিয়ে ও জঙ্গীবাদ প্রতিরোধ করতে হলে সর্বাগ্রে অভিভাবকদের সচেতন হতে হবে। শিক্ষক, শিক্ষার্থী, অভিভাবক, জনপ্রতিনিধিসহ সকলে সচেতন হলে এবং সম্মিলিতভাবে এগিয়ে আসলে কোন ছেলে বখাটেপনার সাহসই পাবে না।

বিশেষ অতিথি উপজেলা চেয়ারম্যান সোয়েব আহমদ হুশিয়ারি উচ্চারণ করে বলেন, আজকের দিনটি যেন এই এলাকার ইভটিজার ও বখাটেদের শেষ দিন হয়। এটা তাদের শেষ সুযোগ। আগামীতে এমন অপতৎপরতার সাহস দেখালে তার বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেয়া হবে।#

About eibeleamialabula

Read All Posts By eibeleamialabula

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *