ফেব্রুয়ারি ২, ২০১৬
Home » খেলা » অনুর্ধ্ব ১৯ বিশ্বকাপ ক্রিকেট : উড়তে থাকা নামিবিয়াকে মাটিতে নামিয়ে আনলো বাংলাদেশ

অনুর্ধ্ব ১৯ বিশ্বকাপ ক্রিকেট : উড়তে থাকা নামিবিয়াকে মাটিতে নামিয়ে আনলো বাংলাদেশ

এইবেলা, স্পোর্টস ০২ ফেব্রুয়ারি :: অনূর্ধ্ব-১৯ বিশ্বকাপে নামিবিয়াকে হারিয়ে গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হয়ে শেষ আটে খেলা নিশ্চিত করেছে মেহেদী হাসান মিরাজ নেতৃত্বাধীন বাংলাদেশ অনূর্ধ্ব-১৯ দল। গ্রুপ পর্বের শেষ ম্যাচে নামিবিয়ার দেয়া ৬৬ রানের লক্ষ্য ৮ উইকেট আর ৩৪ ওভার হাতে রেখেই টপকে যায় বাংলার যুবারা।
বর্তমান চ্যাম্পিয়ন দক্ষিণ আফ্রিকা ও স্কটল্যান্ডকে হারিয়ে উড়তে থাকা নামিবিয়াকে মাটিতে নামিয়ে আনলো মিরাজরা। কক্সবাজারের শেখ কামাল আন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়ামে নামিবিয়ার দেয়া ৬৬ রানের লক্ষ্যে ব্যাট করতে নেমে প্রথম ওভারেই পিনাক ঘোষকে হারায় বাংলাদেশ। স্কোরবোর্ডে কোন রান না ওঠার আগেই পিনাকের বিদায়ে কিছুটা আশা দেখছিল নামিবিয়া। এরপর দ্রুতই ফিরে যান সাইফ হাসানও। দলের রান তখন সবে ১৩।
দাপুটে জয়ে গ্রুপসেরা বাংলাদেশ
কিন্তু এররপরই ব্যাট হাতে দাঁড়িয়ে পড়েন টুর্নামেন্টের এখন পর্যন্ত সবচেয়ে নিয়মিত ব্যাটসম্যান নাজমুল হোসেন শান্ত ও জয়রাজ শেখ। তাদের অবিচ্ছিন্ন ৫৩ রানের জুটিয়ে জয় নিশ্চিত করে বাংলাদেশ। জয়রাজ ৫৫ বলে ৩৪ রানে অপরাজিত থাকেন। আর শান্তর ব্যাট থেকে আসে ২৩ বলে ১৪ রান। নামিবিয়ার হয়ে উইকেট দুটি নেন ফ্রিৎজ কোয়েটজি।
এর আগে টস হেরে ব্যাট করতে নেমে ৩২.৫ ওভারে মাত্র ৬৫ রানে গুটিয়ে যায় নামিবিয়া। শুরুতেই নামিবিয়ার ব্যাটসম্যানদের চেপে ধরে বাংলাদেশ। দলীয় ১০ রানের মধ্যে দুই ব্যাটসম্যানকে ফিরিয়ে দেয় জুনিয়র টাইগাররা। দলীয় ৬ রানের মাথায় লফটি-ইটনকে ফিরিয়ে দিয়েছেন মোহাম্মদ সাইফুদ্দিন। আর ১০ রানের মাথায় রানআউটের শিকার হয়ে ফিরে গেছেন দলীয় অধিনায়ক জেন গ্রিন। তবে এরপর নিজেদের ইনিংস গুছিয়ে নেয়ার চেষ্টা করতে থাকেন লোহান লরেন্স ও নিকো ডেভিন। কিন্তু তাদের ২৭ রানের জুটি ভেঙে দেয়ার পর হুড়মুড়িয়ে পড়ে নামিবিয়ার ইনিংস। কচ্ছপ গতিতে রান তুলতে থাকা দলটি ৩২.৫ ওভারে ৬৫ রানে গুটিয়ে যায়। সর্বোচ্চ ১৯ রানে আসে নিকো ডেভিনের ব্যাট থেকে। ১৭ রান করেন লোহান লরেন্স। বাংলাদেশের হয়ে ২টি করে উইকেট নেন মেহেদী হাসান মিরাজ, সালেহ আহমেদ শাওন ও আরিফুল ইসলাম।
৮ উইকেটে বড় জয়ে অপরাজিত থেকে গ্রুপসেরা হয়ে শেষ আটে খেলবে বাংলাদেশ। আর এ ম্যাচে হেরে গেলেও এর আগেই অবশ্য শেষ আট খেলা নিশ্চিত করেছে নামিবিয়া। #