কুলাউড়ার ব্রাহ্মণবাজার : গ্রাহকের সংযোগ বিচ্ছিন্ন করতে গিয়ে প্রকৌশলী অবরুদ্ধ কুলাউড়ার ব্রাহ্মণবাজার : গ্রাহকের সংযোগ বিচ্ছিন্ন করতে গিয়ে প্রকৌশলী অবরুদ্ধ – এইবেলা
  1. admin@eibela.net : admin :
সোমবার, ০৪ জুলাই ২০২২, ০৮:৫৭ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
কুুড়িগ্রামে বন্যায় ক্ষতিগ্রস্থ পরিবারের মাঝে উদ্দীপন এনজিও’র ত্রাণ বিতরণ বড়লেখায় ৩০০ বন্যাদুর্গতকে ত্রাণ দিল এনসিসি ব্যাংক ভূঙ্গামারীতে অভিমান করে স্কুল ছাত্রের আত্মহত্যা কুড়িগ্রামের ফুলবাড়ীতে খেলার মাঠে শহীদ মিনার নির্মাণ ক্ষুব্ধ এলাকাবাসী মৌলভীবাজারের একাটুনা ইউনিয়ন উন্নয়নে আমরা সংগঠনের পক্ষ থেকে ত্রাণ বিতরণ ওসমানীনগরে ফ্রি মেডিকেল ক্যাম্প আত্রাইয়ে জাতীয় শিক্ষা সপ্তাহ উপলক্ষে পুরস্কার বিতরণ ফুলবাড়ীতে শিক্ষক সমিতির সংবাদ সম্মেলন ফুলবাড়ীতে বিএসএফের ধাওয়ায় নদীতে নিখোঁজ ভাইবোনের লাশ উদ্ধার  বড়লেখায় বানভাসিদের পাশে সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালত

কুলাউড়ার ব্রাহ্মণবাজার : গ্রাহকের সংযোগ বিচ্ছিন্ন করতে গিয়ে প্রকৌশলী অবরুদ্ধ

  • মঙ্গলবার, ২১ জুন, ২০২২

এইবেলা, কুলাউড়া :: কুলাউড়া উপজেলার ব্রাহ্মণবার ইউনিয়নের গুড়াভুঁই ও জালালাবাদ এলাকায় বিদ্যুৎ সংযোগ বিচ্ছিন্ন করতে গিয়ে গ্রাহকের রোষানলে পড়েন বিদ্যুৎ সরবরাহ কেন্দ্রের প্রকৌশলী মফিজুর রহমান। ২১ জুন মঙ্গলবার দুপুরে এই ঘটনা ঘটে। ব্রাহ্মণবাজার ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মমদুদ হোসেন ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি শান্ত করেন।

ব্রাহ্মণবাজার ইউপি চেয়ারম্যান মমদুদ হোসেন জানান, ব্রাহ্মণবাজার এলাকার বেশ কিছু গ্রাম বন্যাদূর্গত। এরমধ্যে বকেয়া বিল পরিশোধ না করার দায়ে গুড়াভুঁইসহ বাজারের বেশ কয়েকটি গ্রাহক সংযোগ বিচ্ছিন্ন করতে আসেন কুলাউড়া বিদ্যুৎ বিভাগের প্রকৌশলী মফিজুর রহমানসহ কর্মচারীরা। স্থানীয় লোকজন তাঁদেরকে জানান ২৩ জুন পর্যন্ত বিদ্যুৎ বিল পরিশোধের সময় রয়েছে। এর আগে কেনো বিদ্যুৎ বিচ্ছিন্ন করতে এসেছেন। বন্যা দূর্গত অবস্থায় বিদ্যুৎ বিভাগের এমন আচরণে স্থানীয়রা ক্ষুব্দ হয়ে ওঠেনএবং তাঁদেরকে বাজারে অবরুদ্ধ করে রাখেন। খবর পেয়ে আমিঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি শান্ত করি। বিষয়টি নিয়ে উপজেলানির্বাহী কর্মকর্তা ও বিদ্যুৎ বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলীকে জানাই।

তিনি আরো জানান, বন্যাকবলিত এলাকার মানুষ এমনিতেই বিপাকে রয়েছেন। এরমধ্যে গ্রাহকদের সাথে বিদ্যুৎবিভাগের লোকজনের এমন আচরণ ঠিক নয়। এটা সরকারের ভাবমূর্তি ক্ষুন্ন করার চেষ্টা।

এব্যাপারে একাধিকবার প্রকৌশলী মফিজুর রহমানের সাথে যোগাযোগের চেষ্টা করলে তিনি মোবাইল ফোন রিসিভ করেননি।

বিদ্যুৎ বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলী ওসমান গণি জানান, এব্যাপারে তিনি কিছু অবগত নন।#

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো সংবাদ পড়ুন
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০১৫ - ২০২০
Theme Customized By BreakingNews