বড়লেখায় দুবাই প্রবাসীর বাড়িতে অগ্নিকান্ড : ৮ কক্ষ পুড়ে ৩০ লাখ টাকার ক্ষতি বড়লেখায় দুবাই প্রবাসীর বাড়িতে অগ্নিকান্ড : ৮ কক্ষ পুড়ে ৩০ লাখ টাকার ক্ষতি – এইবেলা
  1. admin@eibela.net : admin :
রবিবার, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৩:৫৬ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
কমলগঞ্জে মসজিদের কমিটি নিয়ে প্রতিপক্ষের হামলায় আহত-৩ কমলগঞ্জে ব্যবসায়ী নেতার বিরুদ্ধে মামলা প্রত্যাহারের দাবীতে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ বড়লেখায় পুষ্টি বিষয়ে সচেতনতা বৃদ্ধির লক্ষে ইমামদের প্রশিক্ষণ কুলাউড়ায় এক ভুক্তভোগী পরিবারের সংবাদ সম্মেলন : মামলার বাদীসহ স্বাক্ষীদের বিরুদ্ধে চার্জশিট দাখিল  বড়লেখা চৌকি আদালত লিগ্যাল এইড বিশেষ কমিটির মাসিক সভা কমলগঞ্জে প্রেম সংক্রান্ত জেরে বন্ধুর ছুরিকাঘাতে বন্ধু আহত কমলগঞ্জে আড়াই মাস পর শিশুধর্ষণ চেষ্টাকারী পুলিশের হাতে আটক মৌলভীবাজারে সাংবাদিকদের প্রধানমন্ত্রীর চেক বিতরণ তালিকায় অনিয়ম মুরগি-ডিমের টাকাও আত্মসাৎ করল এহসান গ্রুপ! বড়লেখা চৌকি আদালত লিগ্যাল এইড বিশেষ কমিটির সভা

বড়লেখায় দুবাই প্রবাসীর বাড়িতে অগ্নিকান্ড : ৮ কক্ষ পুড়ে ৩০ লাখ টাকার ক্ষতি

  • মঙ্গলবার, ৮ সেপ্টেম্বর, ২০২০
  • ২১৪ বার পড়া হয়েছে

এইবেলা, বড়লেখা ::

বড়লেখায় দুবাই প্রবাসী দুই সহোদরের পাকা টিনসেট বসতবাড়িতে ভয়াবহ অগ্নিকান্ডের ঘটনা ঘটেছে। মঙ্গলবার ভোর সাড়ে পাঁচটার দিকে উপজেলার দক্ষিণভাগ উত্তর ইউনিয়নের (কাঠালতলী) দক্ষিণ মুছেগুল গ্রামের দুবাই প্রবাসী জনাব আলী ও মউর আলীর বাড়িতে ঘটিত অগ্নিকান্ডে মালামালসহ তাদের ৮টি কক্ষ ভস্মিভুত হয়ে ৩০ লক্ষাধিক টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। দুপুরে ইউএনও মো. শামীম আল ইমরান, থানার ওসি মো. জাহাঙ্গীর হোসেন সরদার ও উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা উবায়েদ উল্লাহ খান ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে বৈদ্যুতিক সর্টসার্কিট বা গ্যাস সিলিন্ডার থেকে অগ্নিকান্ডের সুত্রপাত হয়েছে।

আগুন কবলিত বাড়ির সদস্য ও স্থানীয় সুত্রে জানা গেছে, দুবাই প্রবাসী জনাব আলী ও মউর আলীর বাড়িতে কোনো পুরুষ লোক না থাকায় তাদের স্ত্রী-সন্তানদের সাথে বড়ভাইয়ের ছেলে মারওয়ান আহমদ বাড়িতে থাকেন। সোমবার মউর আলীর স্ত্রী নুরী বেগম নিজের কক্ষগুলো তালা দিয়ে বাবার বাড়িতে চলে যান। পরিবারের অন্যান্য সদস্যরা সেহরী খেয়ে ঘুমিয়ে পুড়েন। মারওয়ান আহমদ ফজরের নামাজ নামাজ পড়ে নিজ শয়নকক্ষে শুয়ে পড়েন। ভোর সাড়ে ৫টার দিকে আগুনের দাউ দাউ শব্দ শুনে তিনি উঠে পড়েন এবং চাচী ও চাচাতো ভাইবোনদের ডেকে তুলেন। তাদের হাল্লা চিৎকারে প্রতিবেশিরা ও দমকল বাহিনী ঘটনাস্থলে পৌছে দীর্ঘ চেষ্টা চালিয়ে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। কিন্ত এর আগেই ভয়াবহ আগুনে রান্নাঘরসহ ৮টি কক্ষের মালামাল পুড়ে ছাই হয়ে যায়।

মারওয়ান আহমদ জানান, ফজরের নামাজ পড়ে তিনি বিছানায় শুয়ে পড়েন। হঠাৎ গরম অনুভব করেন এবং আগুনে শব্দ শুনে উঠে দেখেন ভয়াবহ আগুন জ্বলছে। তিনি সবাইকে ঘুম থেকে ডেকে তুলেন। কোথা থেকে কিভাবে আগুনের সুত্রপাত হয়েছে তা বুঝতে পারছেন না। ধারণা করছেন রান্না ঘরের গ্যাস সিলিন্ডার কিংবা বৈদ্যুতিক সর্টসার্কিট থেকে আগুনের সুত্রপাত ঘটতে পারে। ভয়াবহ অগ্নিকান্ডে দুই চাচার বসতঘরের ৮টি কক্ষের ফার্নিচার, স্বর্ণালংকার, কাপড়চোপড়, ফ্রিজ, ইলেক্ট্রনিক্স দ্রব্যসামগ্রীসহ বিভিন্ন মালামাল পুড়ে ৩০ লক্ষাধিক টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে।

বড়লেখা দমকল বাহিনীর ভারপ্রাপ্ত স্টেশন অফিসার অনুপ কুমার সিংহ জানান, অগ্নিকান্ডের সঠিক কারণ নিশ্চিত হওয়া যায়নি। তবে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে বৈদ্যুতিক সর্টসার্কিট কিংবা গ্যাস সিলিন্ডার থেকে অগ্নিকান্ডের সুত্রপাত হতে পারে।#

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো সংবাদ পড়ুন
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০১৫ - ২০২০
Theme Customized By BreakingNews