প্রত্যয়নপত্র সরবরাহ করতে হিমশিম খাচ্ছেন প্রতিষ্ঠান প্রধানরা! প্রত্যয়নপত্র সরবরাহ করতে হিমশিম খাচ্ছেন প্রতিষ্ঠান প্রধানরা! – এইবেলা
  1. admin@eibela.net : admin :
সোমবার, ১৫ জুলাই ২০২৪, ০১:৩৯ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
কুলাউড়ায় আশ্রয়ণের ঘর বরাদ্দের নামে অর্থ আত্মসাতে অভিযুক্ত ইউপি সদস্যের বিরুদ্ধে তদন্ত শুরু ব্যারিস্টার সুমনের সহযোগিতায় বাঁচার আকুতি প্রবাসে বন্দী যুবকের! সিলেটের বন্যাদুর্গত মানুষের পাশে মেডগ্লোবাল শিশু হত্যা মামলার সাজাপ্রাপ্ত পলাতক আসামী গ্রেফতার কোটা সংস্কারে আদালতের রায় না আসা পর্যন্ত কিছু করার নেই – প্রধানমন্ত্রী কমলগঞ্জে পূজা উদযাপন পরিষদের বৃক্ষরোপন কুড়িগ্রামে শিশুদের প্রতি সহিংসতা বন্ধে স্থানীয় স্টেক হোল্ডারদের সাথে সংলাপ সুজানগর ইউপি : বন্যার্তদের ২০ লাখ টাকার খাদ্যসামগ্রী দিচ্ছেন প্রবাসীরা ইউপি চেয়ারম্যান উপ-নির্বাচন-বড়লেখায় প্রতীক পেয়েই প্রচারণায় প্রার্থীরা কুলাউড়ায় বন্যা কবলিত এলাকায় শিশু খাবার পানি বিশুদ্ধকরণ টেবলেট ও খাবার স্যালাইন বিতরণ

প্রত্যয়নপত্র সরবরাহ করতে হিমশিম খাচ্ছেন প্রতিষ্ঠান প্রধানরা!

  • রবিবার, ৭ মার্চ, ২০২১

এইবেলা, কমলগঞ্জ ::

আবেদন করলেই মিলবে ৭ থেকে ১০ হাজার টাকা পাওয়া যাবে এমন গুজবে মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জে সকল শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানগুলোতে হঠাৎ করেই স্বাস্থ্যবিধি উপেক্ষা করে কয়েকেদিন থেকে শিক্ষার্থী ও অভিভাবকদের ঢল দেখা যাচ্ছে। উপজেলার বিভিন্ন কম্পিউটার ও ফটোকপি দোকানগুলোতে শিক্ষার্থীদের উপচেপড়া ভিড় পরিলক্ষিত হয়।

জানা যায়, শিক্ষা মন্ত্রণালয় গত ১৮ জানুয়ারি সিনিয়র সহকারী সচিব স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে সারাদেশের শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান, শিক্ষক-কর্মচারী, প্রতিবন্ধী, অসহায়, রোগগ্রস্ত, গরিব মেধাবী অনগ্রসর সম্প্রদায়ের শিক্ষার্থীদের অগ্রাধিকার ভিত্তিতে অনুদানের টাকা বিতরণের জন্য অনলাইনে আবেদনপত্র আহ্বান করে। এই আবেদনের তারিখ ২৮ ফেব্রুয়ারি শেষ হলে শিক্ষা মন্ত্রণালয় তা ৭ মার্চ পর্যন্ত বৃদ্ধি করে। মন্ত্রণালয়ের ওয়েবসাইটে আবেদন করলেই ৭ থেকে ১০ হাজার টাকা পাওয়া যাবে এই খবর উপজেলার সর্বত্র ছড়িয়ে পরে। এতে অনেক শিক্ষার্থী ও অভিভাবক অনুদানের আবেদনের জন্য শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানগুলোতে প্রত্যয়নপত্র নিতে ভিড় জমাতে দেখা গেছে।

কমলগঞ্জ সরকারি কলেজের শিক্ষার্থী কারিমা রিতু বলেন, আবেদন করলেই ১০ হাজার টাকা পাওয়া যাবে এমন খবরে কলেজে গিয়ে দেখি অনেক শিক্ষার্থী উপস্থিত হয়ে প্রত্যয়নপত্র সংগ্রহ করছে। আমিও প্রত্যয়ন নিয়ে আবেদন করেছি। তবে টাকা পাবো কিনা জানি না। তবে সবাই করছে, তাই আমি করেছি।

এ বিষয়ে কমলগঞ্জ সরকারি গণ মহাবিদ্যালয়ের অধ্যক্ষ কামরুজ্জামান মিয়া বলেন, আবেদনে প্রত্যয়ন প্রয়োজন হওয়ায় আমরা তা সরবরাহ করছি। সবাই ১০ হাজার টাকা পাবে এটি গুজব। মন্ত্রণালয়ের বিজ্ঞপ্তি মোতাবেক সকল শিক্ষার্থীই আবেদন করতে পারে, কিন্তু টাকা সবাই পাবে না। এটি চলমান প্রক্রিয়া। যাচাই বাছাই করে ক্যাটাগরি অনুসারে অনুদান পাবে।

উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার সামছুন্নাহার পারভীন বলেন, সবাই ১০ হাজার টাকা পাবে এটি গুজব। মন্ত্রণালয়ের বিজ্ঞপ্তি মোতাবেক সকল শিক্ষার্থীই আবেদন করতে পারে, কিন্তু টাকা সবাই পাবে না। এটি চলমান প্রক্রিয়া। যাচাই বাছাই করে ক্যাটাগরি অনুসারে অনুদান পাবে। গুজব রোধে আমরা সচেষ্ট আছি।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. আশেকুল হক বলেন, গুজবের ব্যাপারে আমরা সর্বদা সতর্ক অবস্থানে রয়েছি। যেকোনো ধরণের গুজব প্রতিহত করা হবে। #

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

আরো সংবাদ পড়ুন
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০২২ - ২০২৪
Theme Customized By BreakingNews