কমলগঞ্জে উপজেলা প্রশাসনের উদ্যোগে ত্রিপুরা ভাষাকেন্দ্র কমলগঞ্জে উপজেলা প্রশাসনের উদ্যোগে ত্রিপুরা ভাষাকেন্দ্র – এইবেলা
  1. admin@eibela.net : admin :
রবিবার, ২৬ মে ২০২৪, ০৯:২৬ অপরাহ্ন

কমলগঞ্জে উপজেলা প্রশাসনের উদ্যোগে ত্রিপুরা ভাষাকেন্দ্র

  • রবিবার, ২৮ মে, ২০২৩

কমলগঞ্জ (মৌলভীবাজার) প্রতিনিধি :: “কাউকে পেছনে না ফেলে উন্নয়ন” এ শ্লোগানকে ধারণ করে মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জে উপজেলা প্রশাসনের উদ্যোগে ও এ্যাথনিক কমিউনিটি ডেভোলপমেন্ট অর্গানাইজেশন উপজেলার সীমান্তবর্তী মাঝেরছড়া গ্রামে সম্প্রতি প্রতিষ্ঠা করা হয় ত্রিপুরা ভাষা কেন্দ্র। মাঝেরছড়া গ্রাম কমলগঞ্জ এর সীমান্তবর্তী ও কিছুটা দুর্গম এলাকা। সরকারি সেবা ও সহায়তা পেতে এখানকার গ্রামবাসীকে অনেক কাঠখড় পোড়াতে হয়। মূলত লেবু আর আনারস বিক্রি করেই জীবিকা নির্বাহ করেন এখানকার অধিকাংশ বাসিন্দারা। কয়েক পরিবার বাঙ্গালী বাদ দিলে বাকিরা সবাই ত্রিপুরা।

মাঝেরছড়ার এই প্রান্তিক এলাকায় শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বলতে একটা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়। হাইস্কুল বেশ দূরে। স্বাস্থ্যকেন্দ্রও দূরে। নিজেদের ভাষায় পড়াশোনা তো ধরা ছোয়াঁর বাইরে। নতুন প্রজন্মের সবাই পড়াশোনা করছে ঠিকই, কিন্তু নিজেদের ভাষাতে লিখতে-পড়তে জানে না কেউই।

আলাপকালে কমলগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী অফিসার সিফাত উদ্দিন জানান, ১৯৫২ সালের ভাষা আন্দোলনে এ পৃথিবীর সকল ভাষার অধিকার প্রতিষ্ঠার আন্দোলন ছিল। তাই সেই চেতনা আমরা কখোনই মুছে যেতে দেব না। তাদের জন্য উপজেলা প্রশাসন ও এ্যাথনিক কমিউনিটি ডেভোলপমেন্ট অর্গানাইজেশন মিলে প্রতিষ্ঠা করেছে ত্রিপুরা ভাষাকেন্দ্র।

শনিবার সরেজমিন মাঝেরছড়া গ্রামে ত্রিপুরা ভাষাকেন্দ্র এর কার্যক্রম দেখতে যান উপজেলা নির্বাহী অফিসার সিফাত উদ্দিন ও এ্যাথনিক কমিউনিটি ডেভোলপমেন্ট অর্গানাইজেশন এর কর্মকর্তারা। এই উদ্যোগকে সফল করতে খুব শীগগিরই ত্রিপুরা ভাষা প্রশিক্ষকদের অনলাইন প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা করা হবে। একবছর এর একটি পাইলট প্রকল্পের সাফল্য সামনের আরও পিছিয়ে থাকা জনগোষ্ঠীদের ভাষাচর্চার সুযোগ এনে দেবে বলে আশা প্রকাশ করেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার সিফাত উদ্দিন।#

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

আরো সংবাদ পড়ুন
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০২২ - ২০২৪
Theme Customized By BreakingNews