কুলাউড়া-শাহবাজপুর রেলপথ প্রকল্প- বড়লেখায় হেলে পড়ল প্ল্যাটফর্মের গার্ডওয়াল, ক্রেন ও রশিতে টেনে সোজা করছে ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান ! কুলাউড়া-শাহবাজপুর রেলপথ প্রকল্প- বড়লেখায় হেলে পড়ল প্ল্যাটফর্মের গার্ডওয়াল, ক্রেন ও রশিতে টেনে সোজা করছে ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান ! – এইবেলা
  1. admin@eibela.net : admin :
বুধবার, ২৪ জুলাই ২০২৪, ০২:৪২ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
কুলাউড়ার জয়চন্ডীতে রাজু ফাউন্ডেশনের ত্রাণ উপহার বালাগঞ্জের বোয়ালজুর ইউপির উপ-নির্বাচন : চেয়ারম্যান প্রার্থীর উপর হামলার অভিযোগ হাকালুকি হাওর তীরের ৩ উপজেলার জনপ্রতিনিধিদের নিয়ে কুলাউড়ায় মতবিনিময় কমলগঞ্জে ওমান প্রবাসীর বাড়ির সীমানা প্রাচীর নির্মাণে বাঁধা নতুন ঘোষণা কোটা আন্দোলনকারীর, কাল সারাদেশ শাটডাউন রাজারহাটে ধর্মীয় নেতৃবৃন্দের দক্ষতা বৃদ্ধি বিষয়ক ৩ দিন ব্যাপী ওরিয়েন্টশন সভা কবি সঞ্জয় দেবনাথ ও মাহফুজ রিপনকে ভারতের কুমারঘাটে সম্মাননা প্রদান . সংবাদ সম্মেলনে অভিযোগ : প্রতিপক্ষের হুমকিতে নিরাপত্তাহীনতায় প্রবাসী পরিবার কুড়িগ্রামে ৯ উপজেলায় কৃষিতেই ১০৫ কোটি টাকা ক্ষতি সিলেটের কোম্পানীগঞ্জে খাসিয়াদের গুলিতে ২ বাংলাদেশি নিহত

কুলাউড়া-শাহবাজপুর রেলপথ প্রকল্প- বড়লেখায় হেলে পড়ল প্ল্যাটফর্মের গার্ডওয়াল, ক্রেন ও রশিতে টেনে সোজা করছে ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান !

  • রবিবার, ২ জুন, ২০২৪

এইবেলা, বড়লেখা ::

কুলাউড়া-শাহবাজপুর রেলপথ পুনর্বাসন প্রকল্পের দক্ষিণভাগ স্টেশনের নির্মাণাধীণ প্ল্যাটফর্মের হেলে পড়া গার্ডওয়াল এবার ক্রেনে টেলে ও তারের রশিতে টেনে সোজা করছে ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান! শনিবার হেলে যাওয়া দেওয়ালটিতে ক্রেন লাগিয়ে টেলে ও তারের রশিতে টেনে নির্মাণ শ্রমিকরা সোজা করতে দেখা গেছে। ফাটল ধরা হেলে যাওয়া দেওয়াল এভাবে টেলে ও টেনে সোজা করার দৃশ্য দেখে স্থানীয় জনসাধারণের মধ্যে ক্ষোভের সৃষ্টি হয়েছে। তাদের অভিযোগ নির্মাণ কাজের অনিয়মে দেওয়ালটি হেলে পড়ে ও ফাটলের সৃষ্টি হয়। তা ভেঙ্গে ফেলে নতুন করে নির্মাণ না করে এভাবে টেনে সোজা করলে তা বেশিদিন ঠিকবে না।

একই প্ল্যাটফর্মের পশ্চিমের অংশ নির্মাণাধীন অবস্থায় ২০২২ সালের ১৫ জুন হেলে মাটিতে পড়ে যায়। নির্মাণ কাজের অনিয়মে গার্ডওয়াল ভেঙ্গে পড়লেও ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান তখন দাবি করেছিল কয়েকদিনের ভারি বর্ষণে দেওয়ালটি হেলে যায় ও ভেঙ্গে পড়ে। ওই বছরের (২০২২) ২০ জুনের জাতীয় ও স্থানীয় পত্রিকায় এ সংক্রান্ত একটি স্বচিত্র সংবাদ ছাপা হয়। দীর্ঘদিন পর ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান ভাঙ্গা দেওয়ালটি অপসারণের পর নতুন করে তা নির্মাণ শুরু করে।

প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা গেছে, কুলাউড়া-শাহবাজপুর রেলপথ পুনর্বাসন প্রকল্পের বড়লেখা উপজেলার দক্ষিণভাগ স্টেশন ভবনের নির্মাণকাজের সাথে প্ল্যাটফর্ম নির্মাণেরও কাজ শুরু হয়। ২০২২ সালের জুনে প্ল্যাটফর্মের পশ্চিম দিকের প্রায় ৩০ মিটার গার্ডওয়াল হঠাৎ ভেঙ্গে পড়ে। এরপর দীর্ঘদিন কাজ বন্ধ থাকে। ২০২৩ সালের প্রথম দিকে স্টেশন ভবন ও প্ল্যাটফর্ম নির্মাণের কাজ শুরু করে ভারতীয় ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান ‘কালিন্দি রেল নির্মাণ’। স্থানীয় জানান, ৩/৪ দিন আগে নির্মাণাধীন অবস্থায় প্ল্যাটফর্মের পূর্বদিকের পাঁচ ইঞ্চি গাঁথুনির গার্ডওয়ালের প্রায় ৪০ মিটার ¯থান পশ্চিম দিকে হেলে পড়ে। পিলারের জয়েন্টে দেওয়ালে বড় ফাটল সৃষ্টি হয়। ¯থানীয় বাসিন্দা ও রেললাইন চালুর দাবির আন্দোলনের অন্যতম ব্যক্তিত্ব মুজিবুর রহমান জয়নাল ও বাবলু আহমদ অভিযোগ করেন, ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানের কাজের অনিয়মে ২ বছর আগে একই প্ল্যাটফর্মের পশ্চিমের অংশ ভেঙ্গে পড়ে। দীর্ঘদিন বন্ধ থাকার পর পূর্বদিকের দেওয়াল নির্মাণের কাজ শুরু করা হয়। এবারও কাজের অনিয়মে প্রায় ৪০ মিটার দেওয়াল পশ্চিম দিকে হেলে গেছে। দেওয়ালে ফাটল দেখা দিয়েছে। ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানের লোকজন পূর্বদিকে হেলে পড়া দেওয়ালটি সোজা করতে ক্রেন দিয়ে টেলা দিলে পশ্চিম দিকে হেলে পড়ে। আবার সোজা করতে (পূর্বদিকে নিতে) তারের রশিতে টানানো হচ্ছে। এটা কি ধরণের কাজ ! কোনো দিন দেখেননি ও শুনেননি। এতে আবারও দেওয়ালটি ভেঙ্গে পড়বে। শনিবার বিকেলে সরেজমিনে অভিনব কায়দায় ফ্ল্যাটফর্মের হেলে পড়া দেওয়াল ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানের লোকজনকে সোজা করার কাজ করতে দেখা গেছে

প্রসঙ্গ, ২০১৮ সালের মে মাসে ভারতের দিল্লির ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান ‘কালিন্দি রেল নির্মাণ’ কোম্পানি কুলাউড়া-শাহবাজপুর রেললাইনের সংস্কার কাজ শুরু করে। প্রায় ৪২ কিলোমিটার রেলপথ ও ছয়টি রেল স্টেশন ভবন, ব্রিজ-কালবার্ট নির্মাণ করতে ব্যয় হবে প্রায় ৭শ’ কোটি টাকা। চতুর্থ দফা মেয়াদ বাড়িয়ে এখনও প্রকল্পের অর্ধেক কাজ স¤পন্ন করতে পারেনি সংশ্লিষ্ট ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান।

ভারতীয় ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান ‘কালিন্দ রেল নির্মাণ’ এর প্রজেক্ট ম্যানেজার অনিন্দ সারনাল শনিবার বিকেলে জানান, প্রকৌশল ফর্মূলা অনুয়ায়িই হেলে যাওয়া ও দেবে যাওয়া গার্ডওয়াল সোজা করা হচ্ছে। বিষয়টি ইঞ্জিনিয়ারদের উপর ছেড়ে দেন না, কোনো সমস্য হলে পুনরায় তা মেরামত করে দেওয়া হবে।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

আরো সংবাদ পড়ুন
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০২২ - ২০২৪
Theme Customized By BreakingNews