- জাতীয়, ব্রেকিং নিউজ, মৌলভীবাজার, স্লাইডার

বড়লেখায় পৃথক দুই লাশ উদ্ধার

এইবেলা, বড়লেখা, ০৮ মে:: বড়লেখায় বৃহস্পতিবার বিকেলে পড়ে যাওয়া মোবাইল খুজতে গিয়ে টয়লেটের ট্যাংকে পড়ে জাকির হোসেন (২৪) নামে এক যুবকের মৃত্যু হয়েছে। অপরদিকে হেলাল উদ্দিন (২৩) নামে এক কলেজ ছাত্রের ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। নিহত হেলাল উপজেলার সুফিনগর গ্রামের রফিক উদ্দিনের ছেলে ও বিয়ানীবাজার সরকারী কলেজের স্নাতক ২য় বর্ষের ছাত্র। পৃথক ঘটনায় থানায় অপমৃত্যু মামলা হয়েছে। নিহত জাকির উপজেলার দক্ষিণ শাহবাজপুর ইউনিয়নের উত্তর ঘোলসা গ্রামের মৃত আখতার আলীর ছেলে।

থানা পুলিশ, হাসপাতাল ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা গেছে, বৃহস্পতিবার রাতে হেলাল উদ্দিন সেহরী খেয়ে নিজ শয়নকক্ষে ঘুমাতে যায়। সকালে পরিবারের সদস্যরা তার সাড়া না পেয়ে দরজা ভেঙে ভেতরে প্রবেশ করে সিলিং ফ্যানের সঙ্গে তার ঝুলন্ত লাশ দেখতে পান। হেলাল কি কারণে আত্মহত্যা করেছে, সে বিষয়ে পরিবারের সদস্যরা স্পষ্ট কিছু বলতে পারেননি। পুলিশ লাশ উদ্ধার করে মর্গে পাঠিয়েছে।

অপরদিকে প্রকৃতির ডাকে সাড়া দিতে ঘরের বাইরের টয়লেটে গিয়ে জাকির হোসেনের মুঠোফোন ট্যাংকে পড়ে যায়। পরে মুঠোফোনটি উদ্ধারের জন্য ট্যাংকের ঢাকনা খুলে বাঁশ ধরে নিচে নামতে গিয়ে ট্যাংকের মধ্যে তিনি পড়ে যান। এতে ঘটনাস্থলেই তার মৃত্যু ঘটে। এসময় জাকির হোসেনকে উদ্ধার করতে ছোটভাই আলী হোসেনও ট্যাংকে পড়ে আহত হন। পরে আলী হোসেনকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপেক্সে ভর্তি করা হয়।

থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মুহাম্মদ সহিদুর রহমান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, ‘মোবাইল ফোন ওঠাতে গিয়ে নিজেই ঢাকনা খুলেছে। বাঁশ দিয়ে ট্যাংকের নিচে নামতে গিয়ে দুর্ঘটনাবশত সে নিচে পড়ে যায়। এতে ঘটনাস্থলেই জাকির হোসেন মারা যায়।

About eibeleamialabula

Read All Posts By eibeleamialabula

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *