বড়লেখায় পাখি শিকারিদের বিষটোপে আড়াইশ হাঁসের মৃত্যু বড়লেখায় পাখি শিকারিদের বিষটোপে আড়াইশ হাঁসের মৃত্যু – এইবেলা
  1. admin@eibela.net : admin :
শুক্রবার, ২৮ জানুয়ারী ২০২২, ০২:২০ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
বড়লেখায় হাসপাতালের জরুরি বিভাগের সস্মুখ থেকে অজ্ঞাত যুবকের লাশ উদ্ধার মৌলভীবাজারে প্রধান শিক্ষক সমিতির জেলা কমিটি গঠন : সভাপতি জহর সম্পাদক সিরাজুল কমলগঞ্জে পানি সংকটে ৬শ’ হেক্টর জমিতে এখনো বোরো চাষাবাদ ব্যাহত হতাশ কৃষকরা বড়লেখা থানায় দ্বি-বার্ষিক পরিদর্শণে অ্যাডিশনাল ডিআইজি বিপ্লব বিজয় করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন পরিবেশমন্ত্রী মোঃ শাহাব উদ্দিন বড়লেখায় কানাডা প্রবাসীর উদ্যোগে শীতবস্ত্র বিতরণ জুড়ীতে ছাত্রলীগের মাস্ক কম্বল বিতরণ বড়লেখায় ছাত্রলীগের সাবেক সেক্রেটারি জাকির হোসাইনের কম্বল বিতরণ এক সপ্তাহ পর অনশন ভেঙেছেন শাবির শিক্ষার্থীরা কুড়িগ্রামে হাফেজ ছাত্রদের পাগড়ী প্রদান উপলক্ষে তাফসিরুল কোরআন মাহফিল

বড়লেখায় পাখি শিকারিদের বিষটোপে আড়াইশ হাঁসের মৃত্যু

  • শুক্রবার, ১৯ ফেব্রুয়ারী, ২০২১

এইবেলা, বড়লেখা ::

বড়লেখায় অসাধু পাখি শিকারিদের বিষটোপে এক খামারীর ২৫০ হাঁসের মৃত্যু হয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। শুক্রবার সকালে উপজেলার হাকালুকি হাওরের পোয়ালা বিলে ঘটনাটি ঘটেছে। এ ঘটনায় খামার মালিক আলী হোসেন শুক্রবার বিকেলে উপজেলার তালিমপুর ইউনিয়নের পশ্চিম গগড়া গ্রামের ফয়জুর রহমানসহ ৫ জনের নামোল্লেখ করে থানায় লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন।

অভিযোগ সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার তালিমপুর ইউনিয়নের পশ্চিম গগড়া গ্রামের আলী হোসেন ব্র্যাক ব্যাংক থেকে লোন নিয়ে একটি হাঁসের খামার তৈরি করেন। খামারে তার ৪৫০টি হাঁস রয়েছে। হাওরে তিনি ঘর তৈরি করে হাঁসগুলো পালন করেন। প্রায় সময় বিবাদীরা হাকালুকি হাওরে আসা অতিথি পাখি শিকার করে থাকে। হাঁস খামার মালিক আলী হোসেন বিভিন্ন সময় বিবাদিদের পাখি শিকার করতে নিষেধ করেন। তার নিষেধ না মানায় তিনি বিষয়টি স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যানকে জানান। এতে বিবাদিদের সঙ্গে তার বিরোধ সৃষ্টি হয়। এরই জের ধরে তারা শুক্রবার সকালে হাকালুকি হাওরের পোয়ালা বিলে আলী হোসেনের খামারের সামনে ধানের সঙ্গে বিষ মিশিয়ে রাখে। সকালে হাঁসগুলো খাবারের উদ্দেশ্যে বেরিয়ে পড়ে। এসময় বিষ মেশানো ধান খেয়ে ঘটনাস্থলেই ২৫০ হাঁস মারা যায়।

খামার মালিক আলী হোসেন জানান, আমি গরিব মানুষ। ব্যাংক থেকে লোন নিয়ে হাঁসের খামার করেছিলাম। কিন্তু পাখি শিকারিরা আমাকে নি:স্ব করে দিয়েছে। ধানের সঙ্গে শিকারিদের দেয়া বিষ খেয়ে আমার ২৫০ মারা গেছে। বাকি হাঁসগুলোর অবস্থা খারাপ। যেকোনো সময় মারা যেতে পারে। আমি তাদের প্রায় সময় পাখি শিকারে নিষেধ করতাম। এতে ক্ষুদ্ধ হয়ে আমার এতোগুলো হাঁস বিষ দিয়ে মেরে ফেললো। আমি থানায় অভিযোগ দিয়েছি। তাদের দৃষ্টান্তমূলক বিচার চাই।

থানার অফিসার ইনচার্জ জাহাঙ্গীর হোসেন সরদার জানান, বিষটোপ খেয়ে এক খামার মালিকের ২৫০ হাঁস মারা গেছে বলে অভিযোগ পেয়েছি। বিষয়টি তদন্ত করে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে।#

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো সংবাদ পড়ুন
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০১৫ - ২০২০
Theme Customized By BreakingNews