বড়লেখায় ফুটবল টুর্নামেন্টের উদ্বোধন নিয়ে মিশ্র প্রতিক্রিয়া বড়লেখায় ফুটবল টুর্নামেন্টের উদ্বোধন নিয়ে মিশ্র প্রতিক্রিয়া – এইবেলা
  1. admin@eibela.net : admin :
রবিবার, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৪:১০ অপরাহ্ন

বড়লেখায় ফুটবল টুর্নামেন্টের উদ্বোধন নিয়ে মিশ্র প্রতিক্রিয়া

  • সোমবার, ৪ জানুয়ারী, ২০২১
  • ১৪৬ বার পড়া হয়েছে

এইবেলা, বড়লেখা ::

বড়লেখায় বৈশ্বিক করোনা পরিস্থিতির দ্বিতীয় ঢেউ মোকাবেলায় মৌলভীবাজার জেলা প্রশাসকের নির্দেশে উপজেলা প্রশাসন বিভিন্ন সতর্কতামূলক ব্যবস্থা নিয়েছে। কিন্তু প্রশাসনের নির্দেশ উপেক্ষা করে উপজেলার চান্দগ্রাম যুবসমাজ মঙ্গলবার উদ্বোধন করতে যাচ্ছে চান্দগ্রাম ৪র্থ নকআউট ফুটবল টুর্নামেন্ট। হাজার হাজার দর্শক সমাগম ঘটাতে দিনরাত চলছে মাইকিং, বিলি হচ্ছে প্রচারপত্র। এ নিয়ে উপজেলাজুড়ে বিরূপ প্রতিক্রিয়া দেখা দিয়েছে।

টুর্নামেন্টের দাওয়াতপত্রে উল্লেখ করা হয়েছে, বড়লেখার চান্দগ্রাম উচ্চ বিদ্যালয় সংলগ্ন মাঠে মঙ্গলবার বেলা ২ টায় টুর্নামেন্টের উদ্বোধন করা হবে। অনুষ্ঠানের দাওয়াতপত্রে বড়লেখা ও বিয়ানীবাজার উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান, ভাইস চেয়ারম্যান, বড়লেখা পৌরসভার মেয়র, সংশ্লিষ্ট এলাকার বর্তমান-সাবেক ইউপি চেয়ারম্যানসহ বিশিষ্টজনকে অতিথি করা হয়েছে। তবে, করোনা পরিস্থিতিতে বিশাল আয়োজনে খেলা উদ্বোধনের প্রচারনায় বিভিন্ন মহলে আলোচনা-সমালোচনা শুরু হওয়ায় অনেক অতিথি বিব্রতবোধ করছেন। দাওয়াতপত্রের বিশেষ অতিথি নিজ বাহাদুরপুর ইউপি চেয়ারম্যান ময়নুল হক, সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান আলাল উদ্দিন, দৈনিক সিলেটের ডাকের ব্যবস্থাপনা সম্পাদক ওয়াহিদুর রহমান ওয়াহিদসহ কয়েকজন অতিথি জানান, করোনা পরিস্থিতিতে বিশাল আয়োজনে ফুটবল টুর্নামেন্ট ঝুকিপুর্ণ। তারা এ উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে যাবেন না।

থানার ওসি মো. জাহাঙ্গীর হোসেন সরদার জানান, করোনার দ্বিতীয় ঢেউ মোকাবেলায় আমরা নানা ধরণের সতর্কতামুলক ব্যবস্থা গ্রহণ করেছি। বিশাল আয়োজনে ফুটবল টুর্নামেন্টের আয়োজন উদ্বেগের বিষয়। এ সম্পর্কে আমার কিছুই জানা নেই। এব্যাপারে খোঁজখবর নিবেন।

জানা গেছে, করোনার দ্বিতীয় ঢেউ মোকাবেলায় মৌলভীবাজার জেলা প্রশাসন জনসমাগম এড়াতে ওয়াজ মাহফিল, কীর্তন, মেলা, ওরস, উৎসব ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান আয়োজনের অনুমতি না দিতে এবং নজরদারি অব্যাহত রাখতে উপজেলা প্রশাসনকে নির্দেশ দিয়েছে। গত ১৭ ডিসেম্বর জেলা ম্যাজিস্ট্রেট ও জেলা প্রশাসক মীর নাহিদ আহসান স্বাক্ষরিত সতর্কতামূলক এ চিঠি উপজেলা প্রশাসনে প্রেরণ করা হয়। জেলা প্রশাসনের চিঠির পরিপ্রেক্ষিতে বড়লেখা উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. শামীম আল ইমরান ২৬ ডিসেম্বর উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান, থানার অফিসার ইনচার্জ, পৌরসভার মেয়র, সকল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যানদের লিখিতভাবে উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের নির্দেশনার অবগতিপত্র প্রেরণ করেন। এছাড়া উপজেলা প্রশাসনের ফেসবুক পেইজেও এ নির্দেশনা প্রচার করেন।

এরপরও উপজেলার নিজ বাহাদুরপুর ইউনিয়নে ‘চান্দগ্রাম ৪র্থ নকআউট ফুটবল টুর্নামেন্ট’র আয়োজন করায় জনমনে বিরূপ প্রতিক্রিয়ার সৃষ্টি হয়েছে। খেলায় হাজারো লোক সমাগম থেকে করোনাভাইরাসের নতুন সংক্রমণ ঘটলে তা স্থানীয় ও প্রশাসনকে দায়ভার নিতে হবে সচেতন মহল মন্তব্য করেন। তবে প্রকাশ্যে কেউ মূখ খুলতে রাজি হননি।

এব্যাপারে উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. শামীম আল ইমরান জানান, করোনার মধ্যে জনসমাগম না ঘটানোর সরকারী নির্দেশ রয়েছে। চান্দগ্রামে ফুটবল টুর্নামেন্টের অনুমতি চাওয়া হয়নি, এজন্য আমার জানা নেই। করোনার দ্বিতীয় ঢেউয়ের মধ্যে ব্যাপক জনসমাগম ঘটিয়ে ফুটবল টুর্নামেন্টের আয়োজন আত্মঘাতি এবং সরকারের নির্দেশনা পরিপন্থী।

এব্যাপারে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিচ্ছেন। তিনি সবাইকে করোনা সংক্রান্ত সরকারের নির্দেশনা মেনে চলার আহ্বান জানান।#

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো সংবাদ পড়ুন
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০১৫ - ২০২০
Theme Customized By BreakingNews