জুড়ীতে চা শ্রমিক মনার হত্যাকারীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ জুড়ীতে চা শ্রমিক মনার হত্যাকারীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ – এইবেলা
  1. admin@eibela.net : admin :
শনিবার, ২৮ জানুয়ারী ২০২৩, ০২:৪৪ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
বড়লেখা জামেয়া দাখিল মাদ্রাসার নির্মাণাধীন ভবনের নিচ ভরাটে বালুর পরিবর্তে মাটি মৌলভীবাজার পল্লীবিদ্যুৎ সমিতির বার্ষিক সাধারণ সভা অনুষ্ঠিত কাউকে বাদ দিয়ে নয় জোটের বিভাগীয় সমন্বয় কমিটি গঠন বড়লেখায় নবীন এগ্রো ফুডের ব্রাঞ্চ অফিস উদ্বোধন ও বর্ষপূর্তিতে দোয়া ওয়ার্কার্স পার্টির ঢাকা বিভাগীয় সমাবেশ সফল করার আহবান কমরেড মেননের আত্রাইয়ে শেখ রাসেল কম্পিউটার ল্যাবের ১৩টি ল্যাপটপ চুরি কমলগঞ্জে ধর্মীয় ভাবগাম্ভীর্যে বিদ্যা দেবীর আরাধনা নিয়োগ বাণিজ্য কমলগঞ্জে শিক্ষক নিয়োগের ফলাফর ৩ মাসেও প্রকাশ হয়নি কুলাউড়া প্রধানমন্ত্রীর ত্রাণ তহবিলের কম্বল বিতরণ করেন প্রটোকল অফিসার রাজু ভাতিজির বাল্য বিবাহে বাঁধা দেওয়ায় কাল হলো চাচার পরিবারের 

জুড়ীতে চা শ্রমিক মনার হত্যাকারীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ

  • বুধবার, ২৪ মার্চ, ২০২১

এইবেলা, জুড়ী ::

মৌলভীবাজারের জুড়ীতে গরুর ঘাস খাওয়ানোকে কেন্দ্র করে একজনকে কুপিয়ে হত্যা করা হয়েছে। হত্যার ৬ ঘণ্টার মাথায় ওসির তৎপরতায় আসামিকে গ্রেফতার করা হয়েছে। গ্রেফতারকৃত আসামির নাম অনরজিৎ প্রাণিকা (২৬)। সে উপজেলার সাগরনাল চা বাগানের সুকুমার প্রাণিকার ছেলে।

মঙ্গলবার (২৩ মার্চ) সন্ধ্যার দিকে সাগরনাল চা বাগানে গরুকে ঘাস খাওয়ানোকে কেন্দ্র করে এ ঘটনাটি ঘটে। নিহত ব্যক্তির নাম মনা পাশি (২০)। তিনি উপজেলার সাগরনাল ইউনিয়নের সাগরনাল চা বাগানের তিন নং সেকশনের শংকর পাশির ছেলে।মনা পাশীকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে হত্যা করে ঘাতক অনরজিৎ।

এলাকাবাসীর সাথে কথা বলে জানায যায়, সাগরনাল চা বাগানে গরুর ঘাস খাওয়ানোকে কেন্দ্র করে কথাকাটাকাটির একপর্যায়ে দুজন একে অপরকে আঘাত করে। পরে হাতে থাকা দা দিয়ে দুইজনই দুজনকে কুপানো শুরু করে। দায়ের কুপের মারাত্মক আঘাতে ঘটনাস্থলে মনা পাশির মৃত্যু হয়।

সাগরনাল চা বাগানের চিকিৎসক আবুল হোসেন জানান, মৃত্যুর খবর পেয়ে আমি ঘটনাস্থলে গিয়ে লাশটি জমিতে পড়ে থাকতে দেখি। মনা পাশির দেহে ধারালো ‌দায়ের কুপের অসংখ্য চিহ্ন রয়েছে।

সাগরনাল ইউনিয়নের চেয়ারম্যান এমদাদুল ইসলাম চৌধুরী লিয়াকত বলেন, সন্ধ্যায় সাগরনাল চা-বাগানে গরুর ঘাস খাওয়ানোকে কেন্দ্র করে অনরজিৎ প্রাণিকা ও মনা পাশির মধ্যে কথা কাটাকাটির এক পর্যায়ে একে অপরকে দা দিয়ে আঘাত করে। এতে মনা পাশির মৃত্যু হলে লাশ ফেলে সে পালিয়ে যায় হত্যাকারী।

জুড়ী থানার অফিসার্স ইনচার্জ সঞ্জয় চক্রবর্তী জানান, তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে ওই ব্যক্তিকে কুপিয়ে হত্যা করা হয়। হত্যার পর লাশ ফেলে অনরজিৎ প্রাণিকা পালিয়ে যায়। লাশ ময়নাতদন্তের জন্য মৌলভীবাজার সদর হাসপাতালের মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে। হত্যার পর আসামিকে গ্রেফতার করার জন্য আমরা বিভিন্ন জায়গায় অভিযান পরিচালনা করি। অবশেষে প্রধান আসামিকে আমরা গ্রেফতার করতে সক্ষম হই।#

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

আরো সংবাদ পড়ুন
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০১৫ - ২০২০
Theme Customized By BreakingNews