মাধবকুন্ড ও হাকালুকিকে দৃষ্ঠিনন্দন করার পরিকল্পনা নেয়া হয়েছে-পরিবেশমন্ত্রী মাধবকুন্ড ও হাকালুকিকে দৃষ্ঠিনন্দন করার পরিকল্পনা নেয়া হয়েছে-পরিবেশমন্ত্রী – এইবেলা
  1. admin@eibela.net : admin :
বৃহস্পতিবার, ১৯ মে ২০২২, ০৯:১৯ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
খাদ্যে পোকা, অভিযোগ করেই পেলেন ৩৫০০ টাকা বড়লেখায় প্রাক্তন শিক্ষক আপ্তাব হত্যা মামলার ২ আসামি কারাগারে হাকালুকির ‘হাওরখাল’ বিলের রেকর্ড দরপ্রস্তাব ৩ বছরে রাজস্ব আয় প্রায় ৮ কোটি টাকা কমলগঞ্জে আনসার ভিডিপি উপজেলা সমাবেশ অনুষ্ঠিত কমলগঞ্জের মুন্সীবাজারে পূবালী ব্যাংকের উপশাখার শুভ উদ্বোধন কমলগঞ্জে কাজের সময় নিরাপত্তা ব্যবস্থা না থাকার অভিযোগ চা শ্রমিকদের কুলাউড়ায় মোবাইল ফোন আসক্তিকে শিক্ষার্থীদের লাল কার্ড আত্রাইয়ে প্রধানমন্ত্রীর স্বদেশ প্রত্যাবর্তন উপলক্ষে র‌্যালী ও পথসভা কমলগঞ্জে প্রধানমন্ত্রীর স্বদেশ প্রত্যাবর্তণ উপলক্ষে অসহায়দের মধ্যে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ

মাধবকুন্ড ও হাকালুকিকে দৃষ্ঠিনন্দন করার পরিকল্পনা নেয়া হয়েছে-পরিবেশমন্ত্রী

  • বৃহস্পতিবার, ২৭ মে, ২০২১

বড়লেখা প্রতিনিধি ::

পরিবেশ, বন ও জলবায়ু পরিবর্তন বিষয়কমন্ত্রী শাহাব উদ্দিন এমপি বলেছেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশে দেশের সর্ববৃহৎ হাওর হাকালুকি ও দ্বিতীয় বৃহত্তম ইকোপার্ক মাধবকুন্ডকে দৃষ্ঠিনন্দন করার লক্ষে নানামূখী পরিকল্পনা গ্রহণ করা হয়েছে। মাধবকু- জলপ্রপাতে ক্যাবল কার স্থাপনের লক্ষে ভিজিলিটি যাচাই চলছে। আশা করছেন সকল প্রক্রিয়া শেষে কিছু দিনের মধ্যে ক্যাবল কার স্থাপন করা সম্ভব হবে।

এছাড়া জুড়ীর লাঠিটিলায় বনবিভাগের সাড়ে ৫ হাজার হেক্টর এলাকা জুড়ে সাফারি পার্ক স্থাপনের কার্যক্রম চলমান রয়েছে। সরকারের এসব পরিকল্পনা বাস্তবায়িত হলে মৌলভীবাজার জেলায় পর্যটন শিল্পের নতুন দ্বার উন্মোচিত হবে।

তিনি বৃহস্পতিবার দুপুরে মৌলভীবাজারের বড়লেখা উপজেলা পরিষদের মাসিক উন্নয়ন সভায় তাঁর মন্ত্রণালয়ের কার্যালয় হতে ভার্চুয়ালী সংযুক্ত হয়ে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন।

এছাড়াও মন্ত্রী বড়লেখার নবাগত ইউএনওকে পরিবেশের ক্ষতি হয় বিশেষ করে পাহাড় টিলা কাটা, নদী ভরাট, নদী দখল, পুকুর ভরাট, পলিথিনের ব্যবহার, মাদক ব্যবসা, চোরাচালান কর্মকান্ডে জড়িতদের বিরুদ্ধে জিরো টলারেন্সে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়ার নির্দেশ প্রদান করেন। এক্ষেত্রে সীমান্ত এলাকার জনপ্রতিনিধিদেরও তৎপর হওয়ার আহ্বান জানান।

মন্ত্রী শাহাব উদ্দিন ইউএনওকে উদ্দেশ্য করে আরো বলেন, বড়লেখার ইতিপূর্বের কিছু কিছু ইউএনও তাদের কর্মপরিধির বাইরে গিয়েও বড়লেখাকে কিভাবে আরও উন্নত করা যায়, মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করা যায়, পরিবেশের ক্ষতি রোধ করা যায় সকলের সহযোগিতা নিয়ে সে লক্ষ্যে আন্তরিকভাবে কাজ করেছেন। এ জন্য এসব ইউএনওদের নাম বড়লেখাবাসী চিরদিন মনে রাখবেন। তাদের ধারাবাহিকতায় তিনিও (নতুন ইউএনও) যেন সাধারণ মানুষের স্বার্থে কাজ করেন।

উপজেলা চেয়ারম্যান সোয়েব আহমদের সভাপতিত্বে ও নবাগত ইউএনও খন্দকার মোদাচ্ছির বিন আলীর সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত সভায় বক্তব্য রাখেন সহকারী কমিশনার (ভুমি) নূসরাত লায়লা নীরা, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান তাজ উদ্দিন, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান রাহেনা বেগম হাছনা, উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. রতœদীপ বিশ্বাস, থানার ওসি মো. জাহাঙ্গীর হোসেন সরদার, উপজেলা প্রকৌশলী সামছুল হক ভুইয়া, কৃষি অফিসার দেবল সরকার, প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা মো. উবায়েদ উল্লাহ খান, মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার হাওলাদার আজিজুল ইসলাম, পৌরমেয়র আবুল ইমাম মো. কামরান চৌধুরী, ইউপি চেয়ারম্যান ময়নুল হক, নছিব আলী, সিরাজ উদ্দিন, বিদ্যুৎ কান্তি দাস প্রমুখ।#

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো সংবাদ পড়ুন
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০১৫ - ২০২০
Theme Customized By BreakingNews