কুলাউড়ায় শিল্পপতি আজম জে চৌধুরীর উদ্যোগে করোনার চিকিৎসা ও সুরক্ষা সামগ্রী প্রদান কুলাউড়ায় শিল্পপতি আজম জে চৌধুরীর উদ্যোগে করোনার চিকিৎসা ও সুরক্ষা সামগ্রী প্রদান – এইবেলা
  1. admin@eibela.net : admin :
সোমবার, ২০ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০২:২৪ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
রবিরবাজারে আজ যাত্রা শুরু করবে ‌‘কিউর ফার্মেসী’ ভারতে অবৈধ অনুপ্রবেশকালে ভারতীয় বিএসএ‌ফের হা‌তে যুবক আটক মৌলভীবাজারে শিল্পোদ্যোক্তা উন্নয়ন শীর্ষক বিসিকের ৫ দিনব্যাপী প্রশিক্ষণ শুরু আত্রাইয়ে আশ্রয়ন প্রকল্পের শিশুদের জন্য নির্মিত হলো দৃষ্টিনন্দন শিশুপার্ক কুলাউড়ায় সপ্তাহব্যাপী পরিস্কার-পরিচ্ছন্নতা কর্মসূচির উদ্বোধন কমলগঞ্জে মসজিদের কমিটি নিয়ে প্রতিপক্ষের হামলায় আহত-৩ কমলগঞ্জে ব্যবসায়ী নেতার বিরুদ্ধে মামলা প্রত্যাহারের দাবীতে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ বড়লেখায় পুষ্টি বিষয়ে সচেতনতা বৃদ্ধির লক্ষে ইমামদের প্রশিক্ষণ কুলাউড়ায় এক ভুক্তভোগী পরিবারের সংবাদ সম্মেলন : মামলার বাদীসহ স্বাক্ষীদের বিরুদ্ধে চার্জশিট দাখিল  বড়লেখা চৌকি আদালত লিগ্যাল এইড বিশেষ কমিটির মাসিক সভা

কুলাউড়ায় শিল্পপতি আজম জে চৌধুরীর উদ্যোগে করোনার চিকিৎসা ও সুরক্ষা সামগ্রী প্রদান

  • শনিবার, ৩১ জুলাই, ২০২১
  • ১৯৮ বার পড়া হয়েছে
এইবেলা, কুলাউড়া  ::
ইস্টকোস্ট গ্রুপের চেয়ারম্যান ও প্রাইম ব্যাংকের সাবেক চেয়ারম্যান, দেশের খ্যাতনামা শিল্পপতি আজম জে চৌধুরীর পক্ষ থেকে করোনার মহামারীর সংকটকালে কুলাউড়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে প্রায় ১৫ লাখ টাকার করোনার চিকিৎসা ও সুরক্ষা সামগ্রী এবং ঔষুধপত্র প্রদান করা হয়েছে।
শনিবার (৩১ জুলাই) দুপুরে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের কর্তৃপক্ষের কাছে আনুষ্ঠানিকভাবে মেডিক্যাল সুরক্ষা সামগ্রী এবং ঔষুধ তুলে দেয়া হয়।
শিল্পপতি আজম জে চৌধুরীর স্ত্রী ও ইস্টকোস্ট গ্রুপের ভাইস চেয়ারপার্সন সদ্যপ্রয়াত মেরিনা ইয়াসমীন চৌধুরীর স্মরণে এসব সামগ্রী দেয়া হয়।
উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. ফেরদৌস আক্তারের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন ইস্টকোস্ট গ্রুপের চেয়ারম্যান শিল্পপতি আজম জে চৌধুরী। বিশেষ অতিথি ছিলেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা এটিএম ফরহাদ চৌধুরী, কুলাউড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) বিনয় ভূষণ রায়, বিশিষ্ট আইনজীবি চৌধুরী তানজীম করিম, ইস্টকোস্ট গ্রুপের পরিচালক দিলরুবা চৌধুরী, ইস্টকোস্ট গ্রুপের সিইও মাসুদুর রহিম।
প্রধান অতিথির বক্তব্যে আজম জে চৌধুরী বলেন, দেশে এখন করোনা মহামারী সংকট চলছে। দেশের প্রতিটি উপজেলায় করোনার চিকিৎসা সুনিশ্চিত করতে হবে। এজন্য সরকারের পাশাপাশি প্রাতিষ্ঠানিক ও ব্যক্তি সহযোগিতায় উপজেলা হাসপাতালগুলোতে করোনা রোগীদের আইসোলেশন সেন্টার প্রস্তুত করা খুবই গুরুত্বপূর্ণ। আইসোলেশন সেন্টারে করোনা চিকিৎসা ও সুরক্ষা সামগ্রী প্রয়োজন। কুলাউড়া হাসপাতালের করোনা আইসোলেশন সেন্টারে চিকিৎসা নিতে আসা রোগীদের জন্য ও চিকিৎসক এবং স্বাস্থ্যকর্মীদের জন্য চিকিৎসা ও সুরক্ষা সামগ্রী এবং ওষুধপত্র  দেওয়া হয়েছে। প্রয়োজনে আমাদের পক্ষ থেকে আরও এসব সামগ্রী দেওয়া হবে।
অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করেন হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল কর্মকর্তা ডা. জাকির হোসেন।
উল্লেখ্য, ১০টি অক্সিজেন কন্সেনট্রেটর, ২০টি অক্সিজেন ফ্লো মিটার, ১০ টি পালস অক্সিমিটারসহ প্রায় ১৫ লক্ষাধিক টাকার মেডিকেল  সামগ্রী এবং ঔষুধপত্র প্রদান করা হয় কুলাউড়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের ১০ শয্যা বিশিষ্ট কোভিড-১৯ আইসোলেশন ইউনিটের জন্য।#

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো সংবাদ পড়ুন
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০১৫ - ২০২০
Theme Customized By BreakingNews